জাগুয়ার কাউন্সিলর কবিরের সামনেই বাল্য বিয়ে সম্পন্ন ॥ সচেতন মহলের ক্ষোভ!

0
71

নিজস্ব প্রতিবেদক ॥ নগরীর জাগুয়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেনীর ছাত্রী মনিকা রানী শিলের (১৪) গত শুক্রবার গভীর রাতে বাল্য বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। গতকাল সোমবার বাল্য বিয়ে হওয়া স্কুল ছাত্রী মনিকা রানী শীল ও বর সাগর চন্দ্র শিল জাগুয়ায় বেড়াতে এসেছে। এ ঘটনা দেখেও কোন পদক্ষেপ না নেয়ায় কাউন্সিরর কবিরের বিরুদ্ধে বিভিন্ন ধরনের অভিযোগ করেছে স্থানীয়রা।

জাগুয়ার এ্যাপোলো হাসপাতালের সংলগ্ন ২৬ নং ওয়ার্ড কাউন্সিল কবিরের বাড়ির সংলগ্ন স্থানে এ বাল্য বিয়ের ঘটনা ঘটেছে। স্থানীয়রা গতকাল সোমবার সকালে জানান, জাগুয়ার এ্যাপোলো হাসপাতালের সংলগ্ন বাসিন্দা মাধব শিলের ১৪ বছরের কন্যা জাগুয়া মাধ্যমিক বালিকা বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেনীর ছাত্রী মনিকা রানী শিলের সাথে বাকেরগঞ্জের চরাদী ইউনিয়নের চিত্র রঞ্জন শিলের ছেলে সাগর চন্দ্র শিলের গভীর রাতে বিয়ে সম্পন্ন হয়েছে। বাল্য বিয়ের ব্যাপারে কঠোর নিষেধাজ্ঞা থাকার পরও কঠোর শাস্তির কথা জেনেও এ বিয়ে সম্পন্ন করেছে ছেলে ও মেয়ের বাবা।

এ ব্যপারে বরিশাল জেলা প্রশাসক এসএম অজিয়র রহমান বলেন, এখন ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে শাস্তির বিদান আছে।

বরিশাল কোতয়ালী মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ নুরুল ইসলাম (পিপিএম )বলেন, বিয়ের সময় যদি আমারা জানতে পারলে আমরা বিয়ে ভেঙে দিতাম। তবে এখন শুধু ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে সূরহা করা যায়।